artk
রোববার, সেপ্টেম্বার ১৫, ২০১৯ ৯:৫৬   |  ৩১,ভাদ্র ১৪২৬

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

শুক্রবার, আগষ্ট ১৬, ২০১৯ ১১:৫০

কাশ্মির নিয়ে রুদ্ধদ্বার বৈঠকে বসছে নিরাপত্তা পরিষদ

media

জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা বিলোপের মধ্য দিয়ে কাশ্মিরিদের স্বায়ত্তশাসন কেড়ে নেয়ার ভারতীয় সিদ্ধান্ত বিষয়ে চীন ও পাকিস্তানের অনুরোধে রুদ্ধদ্বার বৈঠকে বসছে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ।

শুক্রবার বৈঠকটি হচ্ছে বলে কূটনীতিকরা জনিয়েছেন। রয়টার্স।

কাশ্মির নিয়ে পারমাণবিক শক্তিধর দুই প্রতিবেশী ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। সাধারণত যুক্তরাষ্ট্র ভারতকে এবং চীন পাকিস্তানকে সমর্থন দিয়ে আসছে। এ কারণে ১৫ সদস্যের নিরাপত্তা পরিষদ আজকের বৈঠকে এ বিষয়ে কোনো পদক্ষেপ নিতে পারবে না বলে মনে করছেন পর্যবেক্ষকরা।

৫ আগস্ট ভারতের পার্লামেন্টে জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল করা হয়। এ কারণে স্বায়ত্তশাসন হারায় কাশ্মীরিরা। সেখানে কেন্দ্রীয় শাসন জারি করা হয়। স্থানীয় বাসিন্দা নন এমন নাগরিকদের সম্পত্তি কেনা ও বিয়ে করার সুযোগ করে দিয়েছে ভারত। এর প্রতিবাদে ফুঁসে উঠেছে কাশ্মিরিরা। তারা রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করে। অবরোধও চলছে। 

এদিকে ওই দিনটি থেকে কাশ্মীরের টেলিফোন লাইন, ইন্টারনেট ও টেলিভিশন নেটওয়ার্ক বন্ধ করে রেখেছে দিল্লি এবং লোকজনের অবাধ চলাচল ও জমায়েতের ওপর নিষেধাজ্ঞাও আরোপ করেছে। দুইজন সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি ও ওমর আব্দুল্লাহসহ কয়েকশ কাশ্মীরি নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে।

এর প্রতিক্রিয়ায় মঙ্গলবার জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ বরাবর একটি চিঠি লিখেন পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কুরেশি। তিনি চিঠিতে ভারতের সিদ্ধান্ত নিয়ে বৈঠকে বসার জন্য নিরাপত্তা পরিষদের প্রতি আহ্বান জানান।

চিঠিতে কুরেশি লিখেছেন, “পাকিস্তান কাশ্মিরে যুদ্ধের উসকানি দেবে না। কিন্তু ভারত যেন আমাদের সংযমকে দুর্বলতা না ভাবে। ভারত যদি ফের শক্তি প্রয়োগ করার পথে যায়, আত্মরক্ষার জন্য সর্বশক্তি নিয়ে পাকিস্তান জবাব দিতে বাধ্য হবে।”

এদিকে জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে এমন কোনো পদক্ষেপ নেয়া থেকে বিরত থাকতে ভারত ও পাকিস্তানের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন জাতিসংঘ মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস। কাশ্মীরের ভারতীয় অংশে বিধিনিষেধ আরোপের খবরে উদ্বেগও প্রকাশ করেছেন মহাসচিব।

১৯৪৮ সালে ও ১৯৫০-র দশকে কাশ্মির নিয়ে ভারত-পাকিস্তানের বিরোধের বিষয়ে নিরাপত্তা পরিষদে বেশ কয়েকটি সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছিল। এর মধ্যে মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ কাশ্মীরের ভবিষ্যৎ নির্ধারণে গণভোট নেয়ার কথাও ছিল।

ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে অস্ত্রবিরতি পর্যবেক্ষণ করার জন্য ১৯৪৯ সাল থেকে জম্মু ও কাশ্মীরে জাতিসংঘের শান্তিরক্ষী মোতায়েন আছে।

প্রাথমিকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার ফল প্রকাশ বিশ্বকাপ যাত্রা হার দিয়ে শুরু বাংলাদেশের ড্রোন হামলার পর তেলের উৎপাদন ৫০শতাংশ কমেছে নিষিদ্ধপল্লীতে কী করছেন প্রভা-মৌটুসী? মেসিকে নকল করে ভাইরাল পুত্র নবীর তাণ্ডবে ১৬৫ রানের লক্ষ্য পেল বাংলাদেশ কে এই লেখক ভট্টাচার্য? কুড়িয়ে পাওয়া ২ লাখ টাকা ফেরত দিল মেয়েটি এ পি জে আব্দুল কালাম স্মৃতি পুরস্কারের জন্য মনোনিত হাসিনা টাইগার ঝড়ে আফগান শিবিরে কাঁপন পুঁজিবাজারে না এলে বীমার সনদ বাতিল দুর্নীতির মামলায় কবি শাহাবুদ্দিন নাগরী কারাগারে সার্ভেয়ার সাইফুরের জামিন নামঞ্জুর টস হেরে ফিল্ডিংয়ে বাংলাদেশ দেশের উন্নয়ন মির্জা ফখরুলের চোখে পড়ে না: হানিফ ‘লুটেরা’ বলে সম্বোধন করলে অপমান বোধ করি: বেক্সিমকো সিঙ্গাপুরে কেমন আছেন এন্ড্রু কিশোর? গলাচিপা উপজেলা চেয়ারম্যান শাহিনের বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির মামলা ইতালির নাগরিকত্ব হারাতে পারেন ২ হাজার ৮শ বাংলাদেশি ‘শৃঙ্খলাভঙ্গে ছাত্রলীগ নেতাকে অপসারণের ঘটনা ইতিহাসে প্রথম’ বোমা নিষ্ক্রিয় করতে গিয়ে বিস্ফোরণে র‌্যাব সদস্য আহত প্রয়োজনে থানায় গিয়ে ওসিগিরি করবো: নতুন ডিএমপি কমিশনার ছাত্রলীগের চাঁদাবাজির খবর এখন টক অব দ্য কান্ট্রি: রিজভী ‘বন্দুকযুদ্ধে' রোহিঙ্গা নিহত ভিকারুননিসার নতুন অধ্যক্ষ ফওজিয়া শোভান-রাব্বানীর বিচার চান সোহেল কোনো অন্যায়কারী, চাঁদাবাজকে প্রশ্রয় দেবে না ছাত্রলীগ: নাহিয়ান ডিএসইতে লেনদেন কমলেও সিএসইতে বেড়েছে কুমিল্লায় বাসচাপায় ৩ ছাত্রলীগ নেতা নিহত ইসরায়েলি ড্রোন ভূপাতিতের দাবি ফিলিস্তিনের