artk
সোমবার, অক্টোবার ১৪, ২০১৯ ১১:৪০   |  ২৯,আশ্বিন ১৪২৬
মঙ্গলবার, আগষ্ট ১৩, ২০১৯ ৯:৩৮

ঈদ আনন্দে মাতলো রোহিঙ্গা শিশুরাও

media

ঈদের ছোঁয়া লাগলো রোহিঙ্গা ক্যাম্পেও। লোমহর্ষক নির্যাতনের স্মৃতি ভুলে সোমবার সারাদেশের মানুষের মতো আনন্দে মেতে ওঠে রোহিঙ্গা শিশুরা।

যুবক ও বয়োবৃদ্ধদের অনেকের চোখে-মুখে বিষাদের রেখা দেখা দিলেও অধিকাংশেরই মুখে ছিল হাসি। তবে মূল আনন্দটা দেখা গেছে রোহিঙ্গা শিশু-কিশোরদের মধ্যে।

সময়ের ফেরে বিষাদের স্মৃতি ভুলে গেছে তারা। ঈদের দিন নতুন জামা-কাপড় পরে ঘোরাঘুরি আর স্বজনদের বাড়িতে বেড়াতে যাওয়া ছাড়াও দুরন্তপনা ও হৈ-হুল্লোড়ে মেতে ওঠে রোহিঙ্গা শিশুরা।

জাতিসংঘের জরিপ মতে, মিয়ানমারের রাখাইন থেকে নির্যাতনের শিকার হয়ে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের মধ্যে ৬০ ভাগ শিশু। এদের মধ্যে ৩৬ হাজার শিশু বাবা-মা দুজনকেই হারিয়েছে।

এমনই এক শিশু মরিয়ম (১০)। ২০১৭ সালের সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি সময়ে বাবা-মায়ের সঙ্গে মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসে সে। তবে ঈদের আনন্দে তার চেহারা থেকে মুছে গেছে দুঃসহ যন্ত্রণা ও নির্যাতনের যাতনা। গায়ে নতুন জামা তো আছেই, মনের মতো করে সেজেছে সে।

একই অবস্থা কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালংয়ের ডি-৫ রোহিঙ্গা ক্যাম্পের শিশুদের। ঈদ মেলার পুরো মাঠজুড়ে নাগরদোলাকে ঘিরেই দেখা গেলো তাদের বাড়তি কৌতুহল। তবে বৃষ্টির কারণে এই রোহিঙ্গা শিশুদের ঈদ আনন্দে একটু ভাটাও পড়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, শুধু মাত্র কুতুপালং ক্যাম্পে নয় বরং উখিয়া-টেকনাফের প্রায় ৩২টি রোহিঙ্গা ক্যাম্পে এবার বাড়তি আনন্দের মধ্য দিয়ে ঈদ উদযাপন করেছে শিশুসহ বড়রাও।

উখিয়ার কুতুপালং নিবন্ধিত রোহিঙ্গা নেতা মোহাম্মদ ইউনুছ আরমান বলেন, “২০১৭ সালের ২৫ আগস্টের পর থেকে রোহিঙ্গারা বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়ার ঘটনা প্রায় দুই বছর হতে চললো। এর মধ্যে অবস্থার অনেক পরিবর্তন হয়েছে। বিশেষ করে শিশুদের অনেকেই সেই স্মৃতি ভুলতে বসেছে। যে কারণে এবারের ঈদ গতবারের চেয়ে অনেক আনন্দদায়ক হয়েছে।”

কক্সবাজার শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মোহাম্মদ আবুল কালাম বলেন, “গত দুই বছরে রোহিঙ্গাদের মধ্যে ব্যাপক পরিবর্তন চলে এসেছে। ঈদের সময় শুধু শিশু নয়, বৃদ্ধদের গায়েও আমরা নতুন জামা দেখেছি। শিশুদের ঈদ আনন্দও ছিল গতবারের চেয়ে অনেক বেশি।”

উল্লেখ্য, দ্বিতীয়বারের মতো বাংলাদেশে ঈদুল আজহা উদযাপন করলেন কক্সবাজারের উখিয়া ও টেকনাফে অবস্থানরত রোহিঙ্গারা। নামাজ আদায়ের পর তাদের অনেকেই কোরবানিও দিয়েছেন। যারা কোরবানি দিতে পারেননি, সরকার ও এনজিওর পক্ষ থেকে তাদের মধ্যে মাংস বিতরণ করা হয়েছে।

দূষিত বাতাসের শহরের তালিকায় ঢাকা তৃতীয় ‘আমিও স্কিপিং দড়ি দিয়ে পিটিয়েছি’ জাতিসংঘ শান্তি মিশনে বাংলাদেশের দেনার পরিমান বাড়ছে বেড়েই চলেছে পেঁয়াজের দাম চলছে উবার চালকদের ধর্মঘট ইকুয়েডরের জালে আর্জেন্টিনার ৬ গোল তুর্কি হামলায় সিরিয়া থেকে পালাচ্ছে মার্কিন বাহিনী ২৪ উপজেলা-ইউপি-পৌরসভায় চলছে ভোটগ্রহণ ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি হচ্ছেন সৌরভ গাঙ্গুলী! আবরারকে নিয়ে ভারতীয় তরুণীর স্ট্যাটাস ভাইরাল চালককে খুন করে ইজিবাইক ছিনতাই শোকের বুয়েটে ভর্তি পরীক্ষা সোমবার ইয়াবা কিনতে গিয়ে গণপিটুনি খেল পুলিশ খেলতে গিয়ে ডুবে মরল ২ ভাই চট্টগ্রামে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবলীগ নেতা নিহত বিয়ের ১১ দিনের মাথায় বউকে তালাক দিয়ে শাশুড়িকে বিয়ে পুলিশি বাধায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শোক র‌্যালি সৌদি আরবে পর্যটকরা কেন যাবেন? বুয়েটের ছাত্র শামীম যেভাবে খুনি হয়ে উঠল বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক পদ খালি, স্থগিত ভর্তি পরীক্ষা আবরার কী অন্যায় করেছিল: ড. কামাল ভারতের চেয়ে বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি বাড়বে: বিশ্বব্যাংক আবরার হত্যা: ১০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে রিট নতুন মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম ২৫ অক্টোবর থেকে ১৫ নভেম্বর কোচিং বন্ধ: শিক্ষামন্ত্রী তাইজুলের ৯ উইকেটেও ঢাকার সাথে রাজশাহী ড্র ভারতকেই ফেবারিট মানছেন বাংলাদেশের কোচ জেমি ডে প্রয়োজনে রাজস্ব আদায়ে ১ লাখ লোক দিব: অর্থমন্ত্রী ইমরুলের ডাবল সেঞ্চুরিতেও ড্র করলো খুলনা দীপন হত্যা মামলার বিচার শুরু