artk
সোমবার, আগষ্ট ২৬, ২০১৯ ১০:৪৮   |  ১১,ভাদ্র ১৪২৬

জেলা সংবাদদাতা

বুধবার, জুলাই ১৭, ২০১৯ ১০:০১

আদালতে মিন্নির পক্ষে কোনো আইনজীবী দাঁড়াননি কেন?

media

রিফাত হত্যার ঘটনায় স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নিকে গ্রেপ্তার দেখানোর পর বুধবার তাকে আদালতে তোলা হয় এবং পুলিশের পক্ষ থেকে ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। আদালত তার ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।এ সময় আদালতে মিন্নির পক্ষে কোনো আইনজীবী দাঁড়াননি। 

কেন মিন্নির পক্ষে কোনো আইনজীবী দাঁড়াননি এমন প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে গিয়ে সামনে এলো স্থানীয় এমপিপুত্রের প্রসঙ্গ। স্থানীয় আইনজীবীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, স্থানীয় এমপিপুত্র অ্যাডভোকেট সুনাম দেবনাথ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আগেই স্ট্যাটাস দিয়ে বলেছিলেন, খুনিদের পক্ষে আইনজীবীরা মামলা চালাবেন না। 

মিন্নি ছিলেন রিফাত শরীফ হত্যা মামলার প্রত্যক্ষদর্শী প্রধান সাক্ষী। পুলিশ তাকে জিজ্ঞাসাবাদের পর হত্যাকাণ্ডে তার সংশ্লিষ্টতার আভাস পেয়ে তাকে গ্রেপ্তার দেখায়। 

বুধবার বেলা সোয় তিনটার দিকে পুলিশ মিন্নিকে বরগুনার বিচারিক হাকিম মো. সিরাজুল ইসলাম গাজীর আদালতে হাজির করে। এ সময় আদালতের চারপাশে কড়া পুলিশ প্রহরা ছিল। আদালতের বাইরে মিন্নির বাবা-মা ও আত্মীয়-স্বজনেরা উপস্থিত থাকলেও কারো সঙ্গে তাকে কথা বলেত দেয়া হয়নি। আদালতের কার্যক্রম শেষ হওয়ার পর বেলা পৌনে চারটার দিকে মিন্নিকে আদালত থেকে বের করে কড়া পাহারায় পুলিশ লাইনসে নেওয়া হয়।

পুলিশ ও গোয়েন্দা পুলিশের কঠোর নজরদারির মধ্য দিয়ে মিন্নিকে আদালতে হাজির করার পর রষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী সনজিব দাস তদন্তকারীর পক্ষে মিন্নির ৭ দিনের রিমান্ড চান। 

বিচারক সিরাজুল ইসলাম গাজি কাঠগড়ায় দাঁড়ানো মিন্নির কিছু বলার আছে কি না জানতে চান। তখন মিন্নি আদালতের কাছে নিজেকে নির্দোষ দাবি করেন। একইসঙ্গে বলেন, আমি আমার স্বামী রিফাত হত্যার বিচার চাই। 

এ সময় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মো. হুমায়ুন কবির মামলার ১২ নং আসামি হৃদয়ের জবানবন্দি পেশ করেন। এতে জানা যায়, আসামি হৃদয় রিফাত হত্যার ঘটনায় মিন্নি জড়িত মর্মে জবানবন্দি দিয়েছিল। তদন্ত কর্মকর্তা এছাড়াও ঘটনার আগে নয়ন বন্ড ও রিফাতসহ অন্য আসামিদের সঙ্গে মোবাইলে মিন্নির কথোকথনের ‘কল ডিটেইলস’ পেশ করেন। এসব ব্যপারে মিন্নির কাছে আদালত জানতে চাইলে তিনি তখন নীরব ছিলেন। পরে বিচারক তাকে ৫ দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন। 

রিমান্ড শুনানির সময় রাষ্ট্রপক্ষের কৌঁসুলি সনজিব দাস উপস্থিত ছিলেন। তিনি শুনানির বিষয়টি সাংবাদিকদের কাছে বর্ণনা করেন। সনজিব দাস বলেন, রিফাত হত্যা মামলায় আইনজীবীদের কেউ আসামিদের পক্ষে নিয়োজিত না হওয়ার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হয়েছে। ফলে মিন্নির পক্ষে আদালতে কোনো আইনজীবী ছিলেন না। তবে রিমান্ড শুনানির সময় বিচারক মিন্নিকে আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দিয়েছেন। মিন্নির বক্তব্যে আদালত সন্তষ্ট ছিলেন না বলেই মামলায় তার পাঁচ দিনের পুলিশি রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন। 

স্বাধীনতা অর্জনের পর নতুন পতাকা পেলো বাংসামোরো মুসলিমরা ক্যাটরিনা পেঁয়াজের মতো বহু স্তর : রণবীর ডিসির পিয়ন প্রেমিকা সাধনা সম্পর্কে যা জানা গেল অসামাজিক কার্যকলাপের দায়ে যুব মহিলালীগ নেত্রীসহ আটক ১৯ ‘আবুল মালের অনৈতিক সুবিধা চাপা দেয়ার জন্য আমার চিঠি ভাইরাল’ বাসচাপায় পোশাক শ্রমিক নিহত, বাসে আগুন সত্যকে এড়ানোর উপায় নেই: কাদের শিক্ষকদের কোচিং বাণিজ্য বন্ধে কমিটি হচ্ছে বিদ্যালয়ে বিশ্বের সবচেয়ে দামি অভিনেত্রী স্কারলেট বিএনপি নেতা-কর্মীদের খুন করেছে আ.লীগ: ফখরুল যেভাবে চিনবেন ভালো সিমেন্ট ডেঙ্গুর যাতনা ভুলতেই পারছি না: অর্থমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তি করার অভিযোগে সোনাইমুড়ির মেয়র বরখাস্ত কানে এয়ারফোন, ট্রেনের ধাক্কায় প্রাণ গেলো তরুণের সোনার বাংলা বিনির্মাণে এক সঙ্গে কাজ করতে হবে: অর্থমন্ত্রী কাবিননামায় ‘কুমারী’ শব্দ বাদ দেয়ার নির্দেশ খেলাপি ঋণ কমার সুযোগ নেই স্টোকসের হেলমেট ভাঙলেন হ্যাজলউড শতকোটি টাকা আত্মসাতে ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা সিঙ্গাপুরের ব্যবসায়ীরা বাংলাদেশে বিনিয়োগে আগ্রহী রশিদ খানের হুঙ্কার! দক্ষ জনশক্তির প্রয়োজনে ২ প্রতিষ্ঠান রাতের আঁধারে জামালপুর ছাড়লেন সেই ডিসি শ্রীলঙ্কাকে ৭-১ গোলে গুড়িয়ে দিলো বাংলাদেশের কিশোররা রোগীর ওপর খসে পড়ল হাসপাতালের ছাদের পলেস্তারা রাজাকারদের তালিকা সংগ্রহ করছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় আফগানিস্তানের বিপক্ষে নিজেদেরই এগিয়ে রাখছেন মিরাজ দুদকের কাছে ৩ মাসের সময় চেয়েছেন নূর আলী পৃথিবী ধ্বংসে মেতেছেন ট্রাম্প আর বোলসোনারো আন্তর্জাতিক স্বাস্থ্য সেবা কার্ড নিয়ে এলো ‘মেডিএইডার’