artk
শুক্রবার, সেপ্টেম্বার ২০, ২০১৯ ১১:৪৮   |  ৫,আশ্বিন ১৪২৬

রিফাত বিন সালাম রূপম

বুধবার, এপ্রিল ৩, ২০১৯ ১২:১৬

বেকার তত্ত্ব, ডান-বামের একই চোখ!

media

দেশে বেকারত্বের পরিসংখ্যান যে পদ্ধতিতে করা হয় তাতেই বড় ধরনের গোজামিল থাকে। অতএব শুধু ওই পরিসংখ্যান দেখেই পুরোটা বিচার করা সমস্যাজনক। বাম-ডান সকল দলই এই একই ভুলটা করে। অন্তত যারা ভিন্ন অর্থনীতির জন্য সংগ্রাম করছেন, তাদের শুধু সরকারি জরিপ বলেই বসে থাকা চলবে না। পুরো বিষয়টা আমাদের কাছে পরিষ্কার নয় বলেই আমরা আজীবন রাষ্ট্রের ভুল তত্ত্ব গাইতে থাকি। প্রমাণ আমাদের হাতের কাছেই উপস্তিত-

স্বাভাবিক জ্ঞান কিংবা রাষ্ট্রীয় নিয়মে বলা হয়, বেকারত্ব একটি সামাজিক ব্যাধি অথবা সংকট। ইংরেজি আনএমপ্লোয়মেন্ট (Unemployment) শব্দটি থেকে বেকারত্ব শব্দটি এসেছে। একজন মানুষ যখন তার পেশা হিসেবে কাজ খুঁজে পায় না তখন যে পরিস্থিতি হয় তাকে বেকারত্ব বলে। ঠিক ‘জনতা’ শব্দটার মতোই ‘বেকার’ আরেকটা শব্দ অর্থাৎ সর্বহারা শ্রেণী থেকে বুর্জোয়া শ্রেণি, সকলকে ‘জনতা’ নামে চালিয়ে দেয়া হয়। বলা হয়, জনতার আয় বেড়েছে! কিন্তু কোন শ্রেণির আয় বেড়েছে- এই প্রশ্ন কেউ করে না।

যার বেতন ১০ লাখ, যার চাকরি নিরাপদ তাকেও আমরা কর্মজীবী বলছি। আবার, যার বেতন এক হাজার, চাকরি অনিরাপদ তাকেও আমরা কর্মজীবী বলছি! এই বিচার অন্যায়।

বেকারও একই শব্দ। বেকার বেড়েছে বা কমেছে সেই জরিপ আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ হতে পারে, কিন্তু আরো ঘটনা বাকি থাকে। যেমন- এই ঢাকা শহরে যারা কাজ করে, যারা নিজেকে বেকার বলে না, তারা কি আসলেই কাজ করছেন? সেগুলোকে কাজ বলে?

নিরাপত্তা কই? রাষ্ট্রীয় বা প্রাতিষ্ঠানিক নিরাপত্তা আছে আমাদের? অতএব এই চাকরিগুলোকেও বেকারত্বের তালিকায় রাখা যায় কিনা, সেটা ভাবতে হবে, নতুন করে। আর ভাবলেই দেশের অর্থনীতির ভয়াবহতা আরো চোখে পড়বে। কারণ রাষ্ট্র যখন বলে, দেশে বেকার ১০% বা ২০% বা ৩০%, তখন আসলে বেকার আরো কয়েকগুন বেশি। কারণ চাকরির নাই কোনো আইন, নাই নিরাপত্তা।

ইকোনমিস্ট ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের (ইআইইউ) এক বিশেষ প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বর্তমানে বাংলাদেশের ৪৭ শতাংশ স্নাতকই বেকার। দক্ষিণ এশিয়ায় এর চেয়ে বেশি উচ্চশিক্ষিত বেকার আছেন কেবল আফগানিস্তানে, ৬৫ শতাংশ। এর বাইরে ভারতে এর হার ৩৩ শতাংশ, নেপালে ২০ শতাংশের বেশি, পাকিস্তানে ২৮ শতাংশ এবং শ্রীলঙ্কায় ৭ দশমিক ৮ শতাংশ। বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) শ্রমশক্তি জরিপ ২০১০ অনুযায়ী, দেশে বর্তমানে শ্রমশক্তির পরিমাণ পাঁচ কোটি ৬৭ লাখ। এর মধ্যে পাঁচ কোটি ৪১ লাখ মানুষের কাজ আছে। এর অর্থ মাত্র ২৬ লাখ মানুষ বেকার। তবে জরিপেই বলা আছে, পরিবারের মধ্যে কাজ করে কিন্তু কোনো মজুরি পান না, এমন মানুষের সংখ্যা এক কোটি ১১ লাখ। এ ছাড়া আছে আরও এক কোটি ছয় লাখ দিনমজুর, যাঁদের কাজের কোনো নিশ্চয়তা নেই। বিশ্বব্যাংক মনে করে, সরকার কম দেখালেও প্রকৃতপক্ষে বাংলাদেশে বেকারত্বের হার ১৪ দশমিক ২ শতাংশ।

কিন্তু এই বিশ্বব্যাংক যারা পুঁজির দালাল, তারা আসলে যা দেখায়, তা আসলে একটা আলপিনের মাথা মাত্র, আস্ত আলপিন আরো বড়।

ঠাকুরগাঁও সীমান্তে বাংলাদেশিকে পিটিয়ে মারলো বিএসএফ রাজশাহীর বড়াল নদী থেকে নারীসহ ৪ লাশ উদ্ধার বাংলা ভালো থাকলে গোটা ভারত ভালো থাকবে, এনআরসি প্রসঙ্গে মমতা বাবা হয়েছেন ভিপি নুর নিজ অঞ্চল থেকে ৭শ কিলোমিটার দূরের কারাগারে রাখা হয়েছে কাশ্মীরি বন্দিদের ওয়াশিংটনে বন্দুক হামলায় নিহত ১ ‘গরিবের ছেলের এমন অসুখ হলে বাঁচবে কীভাবে’ ডিজিটাল বাংলাদেশের দ্বিতীয় পর্যায় কক্সবাজারে সিএনজি-লেগুনা সংঘর্ষে মা-ছেলে নিহত কক্সবাজারে ব্র্যাক কর্মী খুন খুলনায় ডেঙ্গু জ্বরে গৃহবধূর মৃত্যু গোপন কুঠুরিতে ৩৩ লাখ টাকা রেখে মারা গেছেন বিআরটিএর কর্মকর্তা বিপর্যয়ের মুখে জাতিসংঘ সফর বাতিল করেছেন নেতানিয়াহু ছাত্রলীগের পর যুবলীগকে ধরেছি: প্রধানমন্ত্রী ক্ষমা চাইলেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী ব্রিটিশ প্রতিনিধিদলের কাছে দেশের পরিস্থিতি তুলে ধরলো বিএনপি শিশুটির প্রতি মাদকাসক্ত বাবার নৃশংসতা প্রধানমন্ত্রীকে বিএনপির অভিনন্দন জানানো উচিত: তথ্যমন্ত্রী ক্যাসিনো: এবার সুর নরম করলেন যুবলীগের চেয়ারম্যান চাঁদা না পেয়ে মডেল মসজিদের নির্মাণ কাজ বন্ধ করে দিলো ছাত্রলীগ! যুবলীগ নেতা খালেদ অস্ত্র ও মাদক মামলায় ৭ দিনের রিমান্ডে রোহিঙ্গারা বাংলাদেশের জন্য বড় ধরনের বোঝা: প্রধানমন্ত্রী বিমানবন্দরে মোদির স্ত্রীর দেখা, শাড়ি উপহার দিলেন মমতা মিথ্যা কথা বলে চীন থেকে ক্যাসিনো মেশিন আমদানি ধৃষ্টতা দেখালে পিঠের চামড়া থাকবে না: ছাত্রলীগ সভাপতি অপরাধী ধরতে প্রযুক্তির অভাব দুদকে যুবকের দুই হাতের কবজি কেটে নিল চেয়ারম্যানের ক্যাডাররা দুদক কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণে যুক্তরাষ্ট্র ‘বাংলাদেশে সাপ্লাই চেইন ফাইন্যান্স জনপ্রিয় হচ্ছে’ হংকংয়ের ইদান পুরস্কার পাচ্ছেন ফজলে হাসান আবেদ