artk
রোববার, মে ৩১, ২০১৫ ৯:১৩

প্রশ্নের ভুলে ফেলের আশঙ্কায় ১৪ ছাত্রী

media

পঞ্চগড়: পঞ্চগড়ে এইচএসসি পরীক্ষায় নতুন ও পুরাতন সিলেবাসের পরীক্ষার্থীদের একই প্রশ্নপত্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ফলে পুরাতন সিলেবাসের মানোন্নয়ন প্রত্যাশী ১৪ জন পরীক্ষার্থী ফেলের আশঙ্কায় ভুগছেন।
 
রোববার পঞ্চগড় এমআর সরকারি কলেজ পরীক্ষা কেন্দ্রে এই ঘটনা ঘটে। এইচএসসির পরীক্ষায় নতুন ও পুরনো শিক্ষার্থীদের একই প্রশ্নপত্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ায় পুরাতন সিলেবাসের মানোন্নয়ন প্রত্যাশী পরীক্ষার্থীরা বিপাকে পড়েছেন। পরীক্ষা কেন্দ্র থেকে তাদের কাঁদতে কাঁদতে বেরিয়ে যেতে দেখা যায়।

পরীক্ষার্থীরা জানায়, দিনাজপুর বোর্ডের অধীনে ওই কেন্দ্রে ২০১৫ সালের পরীক্ষার্থীদের নতুন সিলেবাস অনুযায়ী উৎপাদন ব্যবস্থাপনা ও বিপণন (বিষয় কোড ২৮৬) এবং ২০১৪ সালের পরীক্ষার্থীদের পুরনো সিলেবাস অনুযায়ী অর্থায়ণ ও উৎপাদন এবং বিপণন (বিষয় কোড ২৩৩) পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। উভয় বিষয়ে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ১৪৪ জন। এর মধ্যে পুরনো সিলেবাসের পরীক্ষার্থী ছিল ১৪ জন। পরীক্ষা শুরু হওয়ার পর গোলযোগ দেখা দেয়। কারণ উভয় বিষয়ের পরীক্ষার্থীদের প্রশ্নপত্রের কোড পৃথক হলেও প্রশ্নগুলো ছিল একই রকম।

পরীক্ষার্থীরা আরও জানায়, প্রশ্নপত্র নিয়ে গোলযোগের কারণে পরীক্ষা নির্ধারিত সময়ের ৪০ মিনিট পর শুরু হলেও নির্দিষ্ট সময়ে খাতা জমা নেওয়া হয়। তাই কোনো পরীক্ষার্থীই ভালো পরীক্ষা দিতে পারেনি।

পঞ্চগড় সরকারি মহিলা কলেজ থেকে অংশ নেওয়া বাণিজ্য বিভাগের আরজিনা আক্তার, আনোয়ারা খাতুন, জোহরা খাতুন, আয়েশা সিদ্দিকা, লিপি আক্তার, লাকী আক্তার, জেসমিন আক্তারসহ মানোন্নয়ন প্রত্যাশী পরীক্ষার্থীরা ক্ষোভ প্রকাশ করে জানান, আমরা পুরাতন সিলেবাস অনুযায়ী প্রস্তুতি নিয়ে পরীক্ষা দিতে এসেছি। কিন্তু নতুন সিলেবাস অনুযায়ী আমাদের প্রশ্ন করা হয়েছে। কমন না পড়ায় তাই ঠিকভাবে উত্তর দিতে পারিনি।
 
পরীক্ষার্থী আরজিনা আক্তার জানান, গত বছরে জিপিএ ৪.৮ পেয়েছিলাম। তাই এবার জিপিএ-৫ পাওয়ার জন্য পুনরায় পরীক্ষা দিচ্ছি। কিন্তু নতুন সিলেবাস অনুযায়ী পরীক্ষা দেওয়ায় আমার জিপিএ-৫ এর আশা অপূর্ণই থেকে গেলো। এমন প্রশ্ন হবে জানলে আর পরীক্ষা দিতাম না।

আগামী ২ জুন অনুষ্ঠিত অর্থায়ণ ও উৎপাদন এবং বিপণন বিষয়ের দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। ওই পরীক্ষায় নতুন সিলেবাস অনুযায়ী প্রশ্নপত্র হলে ওই সকল পরীক্ষার্থী ফেল করবেন বলে আশঙ্কা করছেন।  

পঞ্চগড় মকবুলার রহমান সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. আব্দুল খালেক জানান, বিষয়টি দিনাজপুর বোর্ডের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের অবহিত করা হয়েছে। তারা ওই পরীক্ষার বিষয় কোড ও প্রশ্নপত্রের বিষয় ভিন্ন হলেও সিলেবাস একই বলে জানিয়েছেন।
 
নিউজবাংলাদেশ.কম/কেজেএইচ

যুক্তরাষ্ট্রকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিল হুয়াওয়ে ‘ভারত বুঝুক, হারের পর সামনে এসে উল্লাস করলে কেমন লাগে’ মৎস্য কর্মকর্তা লাঞ্ছিত, উপজেলা চেয়ারম্যান বরখাস্ত নারায়ণগঞ্জে শিশুসহ একই পরিবারের দগ্ধ ৮ নায়ক মান্না চলে যাওয়ার ১ যুগ করোনায় মৃত্যুর মিছিলে আরও ১০০ জন বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে ২ মেডিক্যাল শিক্ষার্থী নিহত ইঁদুরেই খেয়েছে ১ লাখ মেট্রিক টন ফসল করোনাভাইরাস আতঙ্কে সিঙ্গাপুরফেরত স্বামীকে রেখে পালালেন স্ত্রী ঘুষের অভিযোগ থেকে সিনহাকে অব্যাহতি কোভিড ১৯: এবার তাইওয়ানে প্রথম মৃত্যু ভোটাররা দেরিতে ঘুম থেকে উঠায় ভোট হবে ৯টায়: ইসি সচিব এই সেলফি তোলার পরেই ট্রেনের ধাক্কায় স্কুলছাত্রের মৃত্যু করোনাভাইরাস: প্রযুক্তিই চীনের শেষ ভরসা সঞ্চয়পত্রে নয়, সুদ কমেছে ডাকঘর সঞ্চয় স্কিমের: অর্থ মন্ত্রণালয় বিশ্বকাপজয়ী ৬ ক্রিকেটার নিয়ে বিসিবি একাদশ ঘোষণা সিরাজগঞ্জে বাস খাদে পড়ে নিহত ৩ চট্টগ্রাম, বগুড়া ও যশোর সিটিতে ভোট ২৯ মার্চ করোনাভাইরাস শনাক্তে বাংলাদেশকে উন্নত কিটস দেবে চীন একত্রে কাজ করবে ডিএসই ও সিএসই বিশ্রামে রিয়াদ, ফিরলেন তাসকিন-মোস্তাফিজ করের বকেয়া অর্থ না দেয়াও দুর্নীতি: দুদক চেয়ারম্যান দক্ষদের নিয়োগ দিচ্ছে টেসলা, ডিগ্রি না হলেও চলবে খালেদা জিয়ার প্যারোল আবেদন সরকার পায়নি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী চিকেন পক্স হলে কী খাবেন বাংলা তারিখ ব্যবহারে নিষ্ক্রিয়তা কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট কারিগরি শিক্ষার্থীদের বেশি গুরুত্ব দেয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ডিএসইএক্সের সেরা দ্বিতীয় উত্থান মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে তৃতীয় মেয়াদে শপথ নিলেন কেজরিওয়াল ফিটনেস ও নিবন্ধনহীন গাড়ি বন্ধে সব জেলায় টাস্কফোর্স গঠনের নির্দেশ