artk
শনিবার, মে ২, ২০১৫ ১০:৪১

পাহাড়ি অঞ্চলে আরও প্রাইমারি স্কুল হবে

media

ঢাকা: পাহাড়ি এলাকায় উপজাতীয়দের জন্য প্রয়োজনের তুলনায় অনেক কম প্রাথমিক বিদ্যালয়। এখানে আরও বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করা হবে বলে জানিয়েছেন সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর।

শনিবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের মিলনায়তনে বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক কল্যাণ সমিতি আয়োজিত কেন্দ্রীয় কমিটির অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক নেতৃবৃন্দের বিদায় সংবর্ধনা ও প্রতিনিধি সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।

সমাবেশে  অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন শিক্ষা সচিব মো. নজরুল  ইসলাম খান,  প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব জ্ঞানেন্দ্র নাথ বিশ্বাস, বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক কল্যাণ সমিতির মহাসচিব মো. মুনছুর আলী, শাহ নেওয়াজ পারভীন প্রমুখ।

উপজাতীয় এলাকায় পর্যাপ্ত সংখ্যক স্কুল নির্মাণ করা হবে জানিয়ে মখা আলমগীর বলেন, “প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই বিষয়ে আবগত আছেন, যথাসময়ে প্রাথমিক স্কুল স্থাপন করা হবে। ২০১৩ সালের পর থেকে আমাদের দেশে আর কোনো প্রাথমিক স্কুল করা হয়নি।”

২০১৩ সালে ২৩ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং ১ লক্ষ ৬ হাজার শিক্ষককে সরকার জাতীয়করণ করেছে জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা স্বাধীনতা যুদ্ধ করেছি সকলকে সমান সুযোগ দেওয়ার জন্য, জ্ঞান-বিজ্ঞানে আলোকিত  দেশ গড়ার জন্য। কিন্তু জোর করে অস্ত্রের মুখে ক্ষমতায় গিয়ে যারা নিজেদের আখের গোছাতে চেয়েছিল তারা, এমন কি জেনারেল এরশাদও দেশের উন্নয়নের জন্য কিছুই করেনি।

তিনি বলেন, “দেশে প্রতি ৭৭২ বর্গমাইল এলাকায় একটি করে বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন করা হয়েছে। যতগুলো কারিগরি বিদ্যালয় স্থাপন করা হয়েছে। এত কম সময়ে অন্য কোথাও করা হয়েছে কিনা তা আমার জানা নেই।”
 
৮৬ লক্ষ কর্মী বিদেশে আছে জানিয়ে তিনি বলেন, “আগামীতে বিদেশে যত কর্মী রপ্তানি করা হবে, তারা হবে দক্ষতা নিয়েই বিদেশ যাবে।”

দেশে কলেরা, ম্যালেরিয়া, যক্ষ্মা নেই উল্লেখ করে তিনি বলেন, “আমরা কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপন করেছি, যা কি না ভারত এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রেও নাই।”

মাদ্রাসা শিক্ষা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “কতিপয় ধর্মান্ধ  ব্যক্তি মাদ্রাসা শিক্ষা নিয়ে কথা বলে। যারা মাদ্রাসায় ভর্তি হবে, তাদেরও আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত হতে হবে।”

তিনি বলেন, “শিক্ষকদের  চিকিৎসার জন্য উন্নতমানের বিশেষায়িত হাসপাতাল এবং মহাবিদ্যালয় স্থাপন করা হবে। হাসপাতালে শিক্ষকরা চিকিৎসা নিতে পারবে। আর মহাবিদ্যালয়ে শিক্ষকরা বিশেষ সুযোগ সুবিধা পাবে।”

শিক্ষা সচিব নজরুল  ইসলাম খান বলেন, “প্রাথমিক বিদ্যালয়ের যেসব বই আছে, সকল বই মাল্টিমিডিয়া করা হবে। সেকেন্ডারি পর্যায়ের বইও মাল্টিমিডিয়ায় রূপান্তরিত করা হচ্ছে। এটা হয়ে গেলে সকল  ছাত্র-ছাত্রী  নোটপ্যাড, ল্যাপটপ, আইপ্যাড নিয়ে ক্লাস করতে পারবে। যদি কোনো কারণে কোনো ছাত্র-ছাত্রী ক্লাসে উপস্থিত হতে না পারে, তাহলে সে বাসায় বসেই ক্লাসের পড়ায় যোগ দিতে পারবে।”

নিউজবাংলাদেশ.কম/টিএ/কেজেএইচ

যুক্তরাষ্ট্রকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিল হুয়াওয়ে ‘ভারত বুঝুক, হারের পর সামনে এসে উল্লাস করলে কেমন লাগে’ মৎস্য কর্মকর্তা লাঞ্ছিত, উপজেলা চেয়ারম্যান বরখাস্ত নারায়ণগঞ্জে শিশুসহ একই পরিবারের দগ্ধ ৮ নায়ক মান্না চলে যাওয়ার ১ যুগ করোনায় মৃত্যুর মিছিলে আরও ১০০ জন বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে ২ মেডিক্যাল শিক্ষার্থী নিহত ইঁদুরেই খেয়েছে ১ লাখ মেট্রিক টন ফসল করোনাভাইরাস আতঙ্কে সিঙ্গাপুরফেরত স্বামীকে রেখে পালালেন স্ত্রী ঘুষের অভিযোগ থেকে সিনহাকে অব্যাহতি কোভিড ১৯: এবার তাইওয়ানে প্রথম মৃত্যু ভোটাররা দেরিতে ঘুম থেকে উঠায় ভোট হবে ৯টায়: ইসি সচিব এই সেলফি তোলার পরেই ট্রেনের ধাক্কায় স্কুলছাত্রের মৃত্যু করোনাভাইরাস: প্রযুক্তিই চীনের শেষ ভরসা সঞ্চয়পত্রে নয়, সুদ কমেছে ডাকঘর সঞ্চয় স্কিমের: অর্থ মন্ত্রণালয় বিশ্বকাপজয়ী ৬ ক্রিকেটার নিয়ে বিসিবি একাদশ ঘোষণা সিরাজগঞ্জে বাস খাদে পড়ে নিহত ৩ চট্টগ্রাম, বগুড়া ও যশোর সিটিতে ভোট ২৯ মার্চ করোনাভাইরাস শনাক্তে বাংলাদেশকে উন্নত কিটস দেবে চীন একত্রে কাজ করবে ডিএসই ও সিএসই বিশ্রামে রিয়াদ, ফিরলেন তাসকিন-মোস্তাফিজ করের বকেয়া অর্থ না দেয়াও দুর্নীতি: দুদক চেয়ারম্যান দক্ষদের নিয়োগ দিচ্ছে টেসলা, ডিগ্রি না হলেও চলবে খালেদা জিয়ার প্যারোল আবেদন সরকার পায়নি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী চিকেন পক্স হলে কী খাবেন বাংলা তারিখ ব্যবহারে নিষ্ক্রিয়তা কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট কারিগরি শিক্ষার্থীদের বেশি গুরুত্ব দেয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ডিএসইএক্সের সেরা দ্বিতীয় উত্থান মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে তৃতীয় মেয়াদে শপথ নিলেন কেজরিওয়াল ফিটনেস ও নিবন্ধনহীন গাড়ি বন্ধে সব জেলায় টাস্কফোর্স গঠনের নির্দেশ