artk
বুধবার, নভেম্বার ২০, ২০১৯ ৮:৪০   |  ৬,অগ্রহায়ণ ১৪২৬

বিনোদন ডেস্ক

বৃহস্পতিবার, অক্টোবার ২৪, ২০১৯ ৫:৪১

মান্না দে নেই সাত বছর

media

আজ ২৪ অক্টোবর কিংবদন্তি গায়ক মান্না দের মৃত্যুবার্ষিকী। ২০১৩ সালের ২৪ অক্টোবর ব্যাঙ্গালুরুর একটি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন মান্না দে। দেখতে দেখতে সাতটি বছর পেরিয়ে গেল। অনেক দিন বার্ধক্যজনিত অসুখে ভুগেছেন। তার মৃত্যুবার্ষিকীতে তাকে নানা ভাবে স্মরণ করছেন ভক্তরা

আজ ২৪ অক্টোবর কিংবদন্তি গায়ক মান্না দের মৃত্যুবার্ষিকী। ২০১৩ সালের ২৪ অক্টোবর ব্যাঙ্গালুরুর একটি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন মান্না দে। দেখতে দেখতে সাতটি বছর পেরিয়ে গেল। অনেক দিন বার্ধক্যজনিত অসুখে ভুগেছেন। তার মৃত্যুবার্ষিকীতে তাকে নানা ভাবে স্মরণ করছেন ভক্তরা।

মান্না দে’র জন্ম ১৯১৯ সালের ১ মে কলকাতায়। তার আসল নাম প্রবোধ চন্দ্র। পড়ালেখা শুরু হয় ‘ইন্দু বাবুর পাঠশালা’ নামের একটি প্রাক-প্রাথমিক বিদ্যালয়ে। পরবর্তীতে স্কটিশ চার্চ কলেজিয়েট স্কুল এবং স্কটিশ চার্চ কলেজ থেকে স্নাতক শিক্ষা গ্রহণ করেছিলেন। কাকা কৃষ্ণ চন্দ্র দে এবং ওস্তাদ দবির খানের কাছ থেকে গানের হাতেখড়ি হয় তার। ১৯৪২ সালে কাকা কৃষ্ণ চন্দ্র দের সঙ্গে মুম্বাই পাড়ি জমান। সেখানে শুরুতে কৃষ্ণ চন্দ্র দের অধীনে সহকারী হিসেবে এবং তারপর শচীন দেব বর্মণের (এসডি বর্মণ) অধীনে কাজ করেন। 

পরে তিনি অনেক স্বনামধন্য গীতিকারের সান্নিধ্যে আসেন এবং তারপর স্বাধীনভাবে নিজেই কাজ করতে শুরু করেন। এ সময় বিভিন্ন হিন্দি চলচ্চিত্রের জন্য সংগীত পরিচালনার পাশাপাশি ওস্তাদ আমান আলী খান এবং ওস্তাদ আবদুল রহমান খানের কাছ থেকে হিন্দুস্তানি শাস্ত্রীয় সংগীতে তামিল নেন মান্না দে। ধীরে ধীরে প্রবেশ করেন বাংলা ছবির ভুবনে। আর সেখানে তিনি অল্প দিনেই হয়ে উঠেন প্লে-ব্যাক সম্রাট। ১৯৫০ থেকে ১৯৭০-এর দশক পর্যন্ত ভারতীয় চলচ্চিত্রে দারুণ জনপ্রিয়তা পান তিনি। সংগীত জীবনে তিনি সাড়ে তিন হাজারেরও বেশি গান রেকর্ড করেছেন। 

দীর্ঘ প্রায় ষাট বছরের সংগীত জীবনে অসামান্য অবদান রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ ভারতের সর্বোচ্চ সম্মাননা ‘পদ্মশ্রী’, ‘পদ্মবিভূষণ’ এবং ‘দাদা সাহেব ফালকে’ খেতাবসহ অসংখ্য খেতাব অর্জন করেন তিনি। এ ছাড়া ২০০৪ সালে রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয় ও ২০০৮ সালে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে ডি লিট সম্মাননা লাভ করেন। 

মান্না দে’র গাওয়া জনপ্রিয় বাংলা গানগুলোর মধ্যে রয়েছে- কফি হাউজের সেই আড্ডা, সবাই তো সুখী হতে চায়, যদি কাগজে লিখ নাম, পৌষের কাছাকাছি রোদ মাখা সেইদিন, কতদিন দেখিনি তোমায়, এ কূলে আমি, কথা দাও, খুব জানতে ইচ্ছে করে, আমি সারারাত, এ নদী এমন নদী, মাঝরাতে ঘুম, এই আছি বেশ, এই রাত যদি, কি এমন কথা, ক’ফোঁটা চোখের জল, সে আমার ছোটবোন, দীপ ছিল শিখা ছিল, যদি হিমালয়-আল্পসের সমস্ত জমাট বরফ, শাওন রাতে, আমার ভালোবাসার রাজপ্রাসাদে, স্বপ্নে বাজেগো বাঁশি, তীর ভাঙা ঢেউ, না না যেও না, তুমি আর ডেকো না, সুন্দরী গো দোহাই দোহাই। এছাড়াও তিনি অসংখ্য জনপ্রিয় হিন্দি গানেও কণ্ঠ দিয়েছিলেন।

কাউন্সিলর রাজিবের তিন গাড়ি জব্দ সেফুদার সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ লবণ নিয়ে গুজব ছড়ালে কঠোর ব্যবস্থা: সরকার রাজস্ব আদায় ২ হাজার কোটি টাকা ছাড়িয়েছে বুধবার থেকে বাস চলবে খুলনায় ৩৯তম বিসিএসে ৪ হাজার ৪৪৩ চিকিৎসক নিয়োগ অধ্যক্ষকে পুকুরে ফেলার ঘটনায় ছাত্রলীগের ৫ কর্মী গ্রেপ্তার খালেদা জিয়া দাঁড়াতে-বসতে বা হাতে তুলে খেতে পারেন না: রিজভী দুই সিটির ভোটবিরোধী ৩৬ কাউন্সিলর লবণ নিয়ে গুজবে কান না দেয়ার পরামর্শ কেজিপ্রতি ১০০ টাকা হওয়ার গুজবে লবণ কেনার হিড়িক খালেদার মুক্তির দাবিতে ২৩ নভেম্বর বিএনপির সমাবেশ ৩০ মামলার আসামি ‘পটেটো রুবেল’ অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার প্রেম করছি কিন্তু বিয়ের দিন এখনও ঠিক হয়নি: জয়া অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি ট্রাক-কাভার্ডভ্যান মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের পাকিস্তানে অনুপ্রবেশের দায়ে ২ ভারতীয় গ্রেপ্তার মিথিলার সঙ্গে বিয়ে নিয়ে এবার মুখ খুললেন সৃজিত সাংবাদিকের চোখ হারানোর প্রতিবাদে চোখে ব্যান্ডেজ লাগিয়ে সংবাদ পাঠ এবার কন্যাসন্তানের বাবা হলেন তামিম প্রধানমন্ত্রী দেশে ফিরছেন রাতে যুক্তরাষ্ট্রের ওয়ালমার্ট স্টোরে গুলিতে নিহত ৩ ‘বন্দুকযুদ্ধে’ জনসংহতির ৩ সদস্য নিহত তারেক রহমানই ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার কাজ শুরু করেন: ফখরুল রিভিউ পরিবর্তন: ইমনের পরিবর্তে কায়কোবাদ ২৮৭ জনকে নিয়োগ দিবে দুদক ৫ দিনে রাজস্ব আদায় ১ হাজার ৬৫৮ কোটি টাকা শোভন-রাব্বানীসহ ১০৫ জনের সম্পদের অনুসন্ধানে দুদক মুনাফা ছাড়া পেঁয়াজ বিক্রির আহবান মেয়র খোকনের লোহাগড়ায় ডেঙ্গু জ্বরে যুবকের মৃত্যু সড়ক আইন বাস্তবায়ন হবেই: ওবায়দুল কাদের