artk
৬ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, সোমবার ২২ অক্টোবর ২০১৮, ১:৫৮ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম

দাঁত ব্রাশ করছেন কীভাবে, কতক্ষণ?

লাইফস্টাইল ডেস্ক | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ০৯০৭ ঘণ্টা, রোববার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ০৯০৯ ঘণ্টা, রোববার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮


দাঁত ব্রাশ করছেন কীভাবে, কতক্ষণ? - লাইফস্টাইল

দাঁতের যত্ন নেয়া স্বাস্থ্যের জন্য জরুরি। কিন্তু অত্যন্ত বেশি যত্ন দাঁতেরই ক্ষতি করতে পারে। কিংবা এমনও হতে পারে, যে উপায়ে যত্ন নিচ্ছেন, তার পদ্ধতি ঠিক হচ্ছে না। এমন হলে কিন্তু দাঁতের ক্ষতি অবধারিত।

ছোটদেরও আমরা দাঁত মাজার কথা বলি, নানা রকম যত্নের উপায় শেখাই। কিন্তু ঠিক কী উপায়ে সেই যত্ন নেয়া সম্ভব তা কি জানেন?

দেখুন তো, পদ্ধতিগত এমন কোনো ভুল রোজ আপনারও হচ্ছে কিনা।

সময়: অনেকেই ভেবে থাকেন, বেশি ক্ষণ ব্রাশ করলে ভালোভাবে দাঁত পরিষ্কার হয়। কিন্তু সে ভাবনা ভুল। চিকিৎসকদের মতে, মিনিট দুয়েকের বেশি সময় ধরে এক টানা ব্রাশ করে যাওয়া দাঁতের স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর।

খেয়ে উঠেই ব্রাশ: খাওয়ার পরেই যদি ব্রাশ করে থাকেন, তা হলে সে অভ্যাস আজই বদলে ফেলুন। দাঁতের সুরক্ষার কথা ভেবে খাওয়ার পরই দাঁত মাজলে তা অনেক সময় ক্ষতি করে। কী ধরনের খাবার খাচ্ছেন সেটা আগে ভাবুন। ফল বা অম্লজাতীয় খাবার খাওয়ার পর দাঁত মাজলে দাঁতের ক্ষয় হয় দ্রুত। তাই এ সব খেয়ে খানিক অপেক্ষা করুন। বরং ভালো করে কুলকুচি করে মুখ ধুয়ে নেয়াই যথেষ্ট।

ব্রাশ: কোন ব্রাশ ব্যবহার করছেন তা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। শক্ত ব্রিসলের ব্রাশ ব্যবহার করা দাঁতের জন্য খারাপ। ব্রাশ কেনার সময় নজর রাখুন ব্রাশের ধরন কেমন, খুব শক্ত বা খুব নরম কোনো ব্রাশই দাঁতের উপযোগী নয়। বরং দাঁতের এনামেলের জন্য উপকারী এমন ব্রাশ কিনুন। ব্র্যান্ডে না ভুলে কেনার আগে পরামর্শ নিন চিকিৎসকের।

টুথপেস্ট: এক একজনের দাঁত এক এক রকমের হয়। প্রত্যেকেরই দাঁতের ধরন আলাদা। দাঁতের রকমফের বুঝে টুথপেস্ট বাছুন। এ ক্ষেত্রেও বিজ্ঞাপনী চমক বা ব্র্যান্ডে না ভুলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

ব্রাশের পদ্ধতি: কতটা শক্তি ক্ষয় করে ব্রাশ করেন তার ওপরও নির্ভর করে দাঁতের যত্ন। অনেকেরই ধারণা খুব জোরে ব্রাশ করলেই বোধ হয় দাঁত ভালো করে পরিষ্কার হয়। কিন্তু আদতে এর উল্টোটা ঘটে। দাঁতের এনামেলের খুব ক্ষতি হয় অত্যধিক চাপে। মাঝারি চাপে ব্রাশ করার অভ্যাস করলে দেখবেন, দাঁত ঝকঝকেও হবে সঙ্গে এনামেলেরও আর ক্ষতি হবে না।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এফএ

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য