artk
মঙ্গলবার, জানুয়ারি ২২, ২০১৯ ১২:০৩   |  ৮,মাঘ ১৪২৫

স্টাফ রিপোর্টার

সংবাদ ডেস্ক

বুধবার, জানুয়ারি ৯, ২০১৯ ৭:০৪

শিশু ধর্ষণের চেষ্টা, হত্যা: বাবার বিরুদ্ধে সাক্ষী দিল মেয়ে

media

রাজধানীতে দুই বছরের শিশুকে ‘ধর্ষণের চেষ্টার’ পর তিনতলা থেকে ফেলে দিয়ে হত্যার ঘটনায় প্রধান আসামি নাহিদের (৪৫) বিরুদ্ধে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন তার মেয়ে। 

মঙ্গলবার আদালতে হাজির হয়ে নিজের বাবার কুকর্মের কথা ফাঁস করে সপ্তম শ্রেণি পড়ুয়া ওই কিশোরী। 

গত ৫ জানুয়ারি ওই ঘটনা ঘটে।  নিহত শিশুর বাবা ইদ্রিস আলী বাদী হয়ে প্রতিবেশী নাহিদের বিরুদ্ধে গেণ্ডারিয়া থানায় মামলা করেন। পরে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে। তবে গ্রেপ্তারের আগে পালাতে গিয়ে তিনতলা থেকে লাফ দেন নাহিদ। এতে তার দুই পা ভেঙে যায়। তাকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। 

নিহত শিশুর মা-বাবা নাহিদের বাসার কাছেই টিনমেড বাসায় ভাড়া থাকেন। তারা দুজনেই স্থানীয় একটি কারখানায় কাজ করেন। ফলে দিনের বেলা শিশুটি গলিতে অন্য বাচ্চাদের সঙ্গে খেলতো। 

আদালতে দেয়া জবানবন্দিতে নাহিদের মেয়ে জানায়, শনিবার সন্ধ্যার দিকে হঠাৎ তারা বাবার ঘরে শিশুর কান্না শুনতে পায় সে।  দরজা খুলে সে দেখতে পায়, তার বাবা বিছানায় আর শিশু আয়েশা তার কোলে কাঁদছে। এ অবস্থা বাবা তাকে ধমক দিয়ে চলে যেতে বলে। পরে শিশুটিকে তিনি তিনতলার জানালা দিয়ে নিচে ফেলে দেন। 

জানা গেছে, নাহিদের স্ত্রী মারা গেছেন ৫ বছর আগে। এরপর তিনি আর বিয়ে করেননি। ১২ বছরের মেয়েকে নিয়ে তিনি ওই বাসায় থাকেন। 

পুলিশ জানিয়েছে, আসামি নাহিদের শরীরের অবস্থা ভালো নয়, তাই তাকে এখনও জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়নি। 

নিউজবাংলাদেশ.কম/এনডি