artk
৪ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, বৃহস্পতিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪:০৯ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম

পাঁচ জেলায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ৬

নিউজ ডেস্ক | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ১২২০ ঘণ্টা, বুধবার ১১ জুলাই ২০১৮ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ১৯৪০ ঘণ্টা, বুধবার ১১ জুলাই ২০১৮


পাঁচ জেলায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ৬ - জাতীয়

ঢাকার কেরানীগঞ্জ, লক্ষ্মীপুর, কুষ্টিয়া, যশোর ও নাটোরে কথিত বন্দুকযুদ্ধে ছয় জন নিহত হয়েছে।

নিহতদের মধ্যে চারজনকে মাদক ব্যবসায়ী ও দুই জনকে ডাকাত বলে দাবি করছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

সারাদেশে মাদক বিরোধী অভিযানের মধ্যে মঙ্গলবার মধ্য রাত থেকে বুধবার ভোর পর্যন্ত এসব ‘বন্দুকযুদ্ধ’ ঘটে।

এর মধ্যে কুষ্টিয়ায় দুজন এবং যশোর, নাটোর, লক্ষ্মীপুরে ও ঢাকার কেরানীগঞ্জ একজন করে নিহত হয়েছেন।

ঢাকা: রাজধানীর উপকণ্ঠ কেরানীগঞ্জের দেউশুরে ডায়মন্ড মেলামাইন এলাকায় মঙ্গলবার রাত ৩টায় গোয়েন্দা পুলিশ মাদক বিরোধী অভিযানে গেলে মাদক ব্যবসায়ীদের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ একজন নিহত হয়।

ডিবি পুলিশের পরিদর্শক মনিরুল ইসলামের ভাষ্য, নিহত নূর হোসাইন নুরু মাদক ব্যবসায়ী ছিলেন এবং তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় ১২টি মামলা রয়েছে।

ঘটনাস্থল থেকে ৩৫ পিস ইয়াবা ও আগ্নেয়াস্ত্র জব্দ করা হয় বলেও দাবি করেন ডিবির এই কর্মকর্তা।

কুষ্টিয়া: জেলার মিরপুরে র‌্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে মামা-ভাগ্নে ফুটু ওরফে মোন্না (৩৫) ও রাসেল আহম্মেদ (৩০) নামের দুই ব্যক্তির নিহত হয়েছে, যাদের মাদক ব্যবসায়ী বলছে র‌্যাব।

বুধবার ভোরে মিরপুর উপজেলার কূর্শা ইউনিয়নের আনন্দ বাজার বালুচর সংলগ্ন জোয়াদ্দারের ইটভাটার কাছে এ ‘বন্দুকযুদ্ধ’ হয়।

নাটোর: জেলার বড়াইগ্রামে কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ওসমান গণী নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।

নিহত ওসমানকে চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী দাবি করে র‌্যাব জানায়, ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র, গুলি ও মাদক দ্রব্য উদ্ধার করা হয়েছে।

র‌্যাব-৫ নাটোর ক্যাম্পের কমান্ডার মেজর শিবলী মোস্তফার ভাষ্য, মঙ্গলবার রাত পৌনে ১২টার দিকে র‌্যাবের একটি টহল দল বড়াইগ্রাম উপজেলার বাহিমালী এলাকার কাঁচা রাস্তায় টর্চ জালিয়ে কয়েকজন লোককে আনাগোনা করতে দেখে সেদিকে অগ্রসর হয়।

এসময় লোকগুলো পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে র‌্যাব সদস্যরা তাদের আত্নসমর্পণের নির্দেশ দিলে তারা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়। র‌্যাবও পাল্টা গুলি চালায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে ওসমান গণীর গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার করা হয়।

লক্ষ্মীপুর: জেলার রায়পুর উপজেলার চরপাতা এলাকায় বুধবার ভোরে কথিত বন্দুকযুদ্ধে এক যুবক নিহত হন। তিনি রায়পুর উপজেলার দেনায়েতপুর গ্রামের আবদুল মুনাফের ছেলে।

পুলিশের ভাষ্য, নিহত সোহেল ডাকাত দলের সদস্য। তার বিরুদ্ধে চাঁদপুর ও রায়পুর থানায় বিভিন্ন অপরাধে ১৯টি মামলা রয়েছে।

যশোর: জেলার মণিরামপুরে কথিত গোলাগুলিতে একজন নিহত হয়েছেন।

বুধবার ভোরে যশোর-রাজগঞ্জ সড়কের কোদলাপাড়া জামতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত যুবকের নাম-পরিচয় এখনও জানা যায়নি। তার বয়স প্রায় ৩২ বছর।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এফএ

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত