artk
৬ শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, শনিবার ২১ জুলাই ২০১৮, ৭:৫৪ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম

কোটা সংস্কার আন্দোলন: ফারুকসহ তিনজন রিমান্ডে

স্টাফ রিপোর্টার | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ১৭০৩ ঘণ্টা, মঙ্গলবার ১০ জুলাই ২০১৮


কোটা সংস্কার আন্দোলন: ফারুকসহ তিনজন রিমান্ডে - কোর্ট-কাচারি

সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক ফারুক হোসেনসহ তিনজনকে নাশকতার অভিযোগের পৃথক দুই মামলায় দুই দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার ঢাকা মহানগর হাকিম আব্দুল্লাহ আল মাসুদের আদালত শুনানি শেষে রিমান্ডের আদেশ দেন।

রিমান্ডে যাওয়া অপর দুজন হলেন- জসিম উদ্দিন ও মশিউর রহমান। আর তরিকুল ইসলাম নামে আরেকজনের রিমান্ড শুনানির তারিখ আগামী ১৭ জুলাই ধার্য করেছেন আদালত।

কোটা সংস্কার আন্দোলনের সময় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বাসভবনে হামলা, গাড়ি পোড়ানোসহ নাশকতার অভিযোগে দায়ের করা দুই মামলার মধ্যে এক মামলায় ফারুক ও তরিকুলের সাত দিন এবং আরেক মামলায় জসিম ও মশিউরের সাত দিন করে গত ৪ জুলাই রিমান্ড আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক বাহাউদ্দিন ফারুকী। ওই দিন আদালত রিমান্ড শুনানির দিন মঙ্গলবার ধার্য করে দেন। এদিন রিমান্ড শুনানিকালে ওই তিনজনকে আদালতে হাজির করা হয়।

আসামিপক্ষে ব্যারিস্টার জ্যোতির্ময় বড়ুয়া, সাহারা হোসেন প্রমুখ আইনজীবী ওই তিন আসামির রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিন শুনানি করেন। আর তরিকুল ইসলাম আদালতের অনুমতি নিয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছেন জানিয়ে রিমান্ড শুনানি পেছানোর আবেদন করেন।

উভয়পক্ষের শুনানি শেষে আদালত তরিকুলের রিমান্ড শুনানির তারিখ ১৭ জুলাই ধার্য করেন। অপর তিন আসামির দুই দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

গত ৩ জুলাই ফারুকসহ তিনজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ওই দিনই আদালত তাদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। পরদিন তাদের রিমান্ড আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা।

উল্লেখ্য, গত ৮ এপ্রিল কোটা সংস্কার আন্দোলনের সময় আন্দোলনকারীরা রাস্তা বন্ধ করে টায়ার ও আসবাবপত্র জ্বালানোসহ নাশকতা করে বলে অভিযোগ করা হয়। ওই ঘটনায় শাহবাগ থানা তিনটি মামলা করে পুলিশ। আর ভিসির বাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনিয়র সিকিউরিটি অফিসার এসএম কামরুল আহসান বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের মামলা করেন।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এসজে

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত