artk
৪ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, বৃহস্পতিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪:২৭ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম

কন্যা শিশুর মা হলেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী

বিদেশ ডেস্ক | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ১৫৩৬ ঘণ্টা, বৃহস্পতিবার ২১ জুন ২০১৮ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ১৬১৯ ঘণ্টা, বৃহস্পতিবার ২১ জুন ২০১৮


কন্যা শিশুর মা হলেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী - বিদেশ

মেয়ে সন্তানের জন্ম দিয়েছেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্ন। জাসিন্ডা ও তার সঙ্গী ক্লার্ক গেফোর্ডের প্রথম সন্তান এটি।

৩৭ বছর বয়সী এই প্রধানমন্ত্রী তার ব্যক্তিগত ইনস্টাগ্রাম পোস্টে জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার ভোর পৌনে ৫টায় তার মেয়ে জন্ম নিয়েছে।

জাসিন্ডা তার পোস্টে লিখেছেন, যারা শুভকামনা জানিয়েছেন তাদের সবাইকে ধন্যবাদ। আমরা ভালো আছি। অকল্যান্ড সিটি হসপিটালের অসাধারণ টিমটাকে ধন্যবাদ।

অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসের তথ্য অনুযায়ী, আধুনিক বিশ্বে জাসিন্ডা দ্বিতীয় রাজনৈতিক নেতা যিনি প্রধানমন্ত্রীর পদে থাকা অবস্থাতেই সন্তানের মা হলেন। এর আগে ১৯৯০ সালে পাকিস্তানের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী বেনজির ভুট্টো মেয়ের মা হয়েছিলেন।

জাসিন্ডা ছয় সপ্তাহের ছুটি নেয়ার পরিকল্পনা করছেন। তার অনুপস্থিতিতে সবকিছু দেখভালের দায়িত্ব নিয়েছেন নিউজিল্যান্ডের উপ-প্রধানমন্ত্রী উইনস্টন পিটার্স।

জাসিন্ডা আরডার্ন গত জানুয়ারিতে জানিয়েছিলেন তিনি অন্তঃসত্ত্বা। তার স্বামী ক্লার্ক গেফোর্ড। সন্তানের জন্মের পর ছয় সপ্তাহের ছুটিতে যাওয়ার পরিকল্পনা করেছেন জাসিন্ডা। আগামী আগস্টে কাজ যোগ দেবেন বলে আশা করছেন তিনি।

১৮৫৬ সালের পর থেকে এ পর্যন্ত নিউজিল্যান্ডের সবচেয়ে কনিষ্ঠ প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন জাসিন্ডা আরডার্ন। গত অক্টোবরে তিনি কেন্দ্রীয় বাম (সেন্টার লেফট) জোটের দায়িত্ব পান।

  • জনমতের চাপে অভিবাসীদের বিচ্ছিন্ন রাখার নীতি বদলালেন ট্রাম্প

গত সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে আরডার্নের লেবার পার্টি দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল। ওই নির্বাচনে কোনো দলই এককভাবে সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিশ্চিত করতে পারেনি। নিউজিল্যান্ড ফার্স্ট পার্টির নেতা উইনস্টন পিটারের সমর্থন নিয়ে সরকার গঠন করেন জাসিন্ডা আরডার্ন।

প্রধানমন্ত্রী হওয়ার মাত্র ছয় দিন আগে আরডার্ন জানতে পারেন তিনি অন্তঃসত্ত্বা। এটি তার জন্য দারুণ খবর ছিল। আর সব মায়ের মতো তিনিও এ নিয়ে উচ্ছ্বসিত ছিলেন। তিনি সন্তানকে নিয়ে নিজের অনুভূতির কথা জানিয়েছেন বিবিসিকে।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এসজে/এএইচকে

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত