artk
৭ বৈশাখ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, শুক্রবার ২০ এপ্রিল ২০১৮, ১২:৫৭ অপরাহ্ন

শিরোনাম

মামলা তোলার দাবি
কোটা আন্দোলনের ৩ নেতাকে ‘তুলে নিয়ে’ জিজ্ঞাসাবাদ!

স্টাফ রিপোর্টার | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ১৫৪৮ ঘণ্টা, সোমবার ১৬ এপ্রিল ২০১৮ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ১৯২১ ঘণ্টা, সোমবার ১৬ এপ্রিল ২০১৮


কোটা আন্দোলনের ৩ নেতাকে ‘তুলে নিয়ে’ জিজ্ঞাসাবাদ! - জাতীয়

সরকারি চাকরির কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতারা সংবাদ সম্মেলন করে দুই দিনের মধ্যে মামলা প্রত্যাহারের আল্টিমেটাম দেয়ার পর তিন নেতাকে ধরে নিয়ে ‘জিজ্ঞাসাবাদ করে’ ছেড়ে দিয়েছে গোয়েন্দা পুলিশ।

তারা হলেন- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্র নুরুল্লাহ নূর, এমবিএর (ব্যাংকিং অ্যান্ড ইন্স্যুরেন্স বিভাগ) ছাত্র রাশেদ খান এবং দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্র ফারুক হোসেন।

এই আন্দোলনকারীরা সোমবার বেলা ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, ক্যাম্পাসে সংঘর্ষ ও উপাচর্যের বাসভবনে হামলার ঘটনায় দায়ের করা সব মামলা দুই দিনের মধ্যে প্রত্যাহার না করলে আবার রাজপথে নামবেন তারা।

সংবাদ সম্মেলনের পরপরই ওই তিনজনকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের সামনে থেকে রিকশা থেকে নামিয়ে একটি বড় মাইক্রোবাসে করে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন প্রত্যক্ষদর্শী আরেক নেতা ও এক দোকান কর্মচারী। পরে যুগ্ম আহ্বায়ক রাশেদ খানও বলেন, তাদের তুলে নেয়া হয়।।

গোয়েন্দা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার আব্দুল বাতেন বলেন, “তাদের তদন্তের প্রয়োজনে নিয়ে আসা হলেও জিজ্ঞাসাবাদ করে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।”

এই পুলিশ কর্মকর্তা জানান, কোটা সংস্কার আন্দোলনের সময় বিভিন্ন ‘সহিংসতার’ ঘটনায় যেসব তথ্য উপাত্ত পুলিশ পেয়েছে, সেগুলো যাচাই বাছাই করার জন্যই ওই তিনজনকে তারা ‘নিয়ে’ গিয়েছিলেন।

তিনি বলেন, “ভিসির বাসায় যে হামলা হয়েছিল, এই ঘটনায় যেসব ভিভিও ফুটেজ পেয়েছি সেগুলো যাচাই বাছাই করার জন্য তদন্তের প্রয়োজনে তাদের ডেকে এনেছিলাম। তারা চলে গেছে।”

এর আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রন্থাগারের সামনে সংবাদ সম্মেলনে ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম-আহ্বায়ক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী নুরুল হক নূর বলেন, “আন্দোলনরত হাজারও শিক্ষার্থীর বিরুদ্ধে যে ভিত্তিহীন মামলা দেয়া হয়েছে, আগামী দুই দিনের মধ্যে তা প্রত্যাহার করতে হবে। না হলে এ দেশের সাধারণ শিক্ষার্থীরা রাজপথে আবারও দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলবে।”

সাধারণ শিক্ষার্থীরই এ আন্দোলনের নেতৃত্বে দিচ্ছে দাবি করে তিনি বলেন, “এই আন্দোলন যারা করেছে, তাদের হয়রানি করবেন না। যদি তাদের হয়রানি করা হয়, তাহলে আমরা আবারও আন্দোলন করব।”

নিউজবাংলাদেশ.কম/এসজে/এএইচকে

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত