artk
১১ ফাল্গুন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ২:১৭ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম

ঢাকা উত্তরে বিএনপির মনোনয়ন চান যারা

স্টাফ রিপোর্টার | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ২০৪৫ ঘণ্টা, রোববার ১৪ জানুয়ারি ২০১৮ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ১৬১৫ ঘণ্টা, সোমবার ১৫ জানুয়ারি ২০১৮


ঢাকা উত্তরে বিএনপির মনোনয়ন চান যারা - রাজনীতি

আসন্ন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন উপ-নির্বাচনে মেয়র পদে বিএনপির প্রার্থী হতে মনোনয়ন ফরম কিনেছেন পাঁচজন। রোববার তারা নয়া পল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে এই মনোনয়ন ফরম কেনেন।

জানা গেছে, বিএনপির বিশেষ সম্পাদক ড. আসাদুজ্জামান রিপন, সহ প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক শাকিল ওয়াহেদ, তাবিথ আউয়াল, সাবেক সংসদ সদস্য অবসরপ্রাপ্ত মেজর আখতারুজ্জামান (রঞ্জন) এবং বিএনপির ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি এম এ কাইয়ুম মনোনয়ন ফরম কিনেছেন। বিক্রির দায়িত্বে ছিলেন বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

তিনি জানান, ফরম বিক্রি শেষ। সোমবার বিকাল ৪টার মধ্যে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ২৫ হাজার টাকা জামানতসহ মনোনয়ন ফরম জমা দেয়া যাবে। সোমবার রাত সাড়ে ৮টায় গুলশানে দলের চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার হবে। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্যদের নিয়ে গঠিত মনোনয়ন বোর্ড এই সাক্ষাৎকার নেবে। মনোনয়ন বোর্ড প্রার্থীদের যাচাই-বাছাই করে একজন প্রার্থীকে মেয়র পদে মনোনয়ন দেবে। তার নাম আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করা হবে।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে তাবিথ আউয়াল এগিয়ে আছেন। তিনি গতবার উত্তর সিটি নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী ছিলেন। ভোটের দিন জালিয়াতির অভিযোগ এনে সরে দাঁড়ালেও বিপুল সংখ্যক ভোট পেয়েছিলেন। ওই নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী আনিসুল হক মেয়র নির্বাচিত হন। তাই তাবিথ আউয়াল পরিচিত মুখ। তাকে নতুন করে পরিচিত করানোর দরকার নেই। এছাড়া তার রয়েছে ক্লিন ইমেজ।

আনিসুল হকের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে মেয়র পদে উপনির্বাচনের জন্য আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি ভোটের দিন ঠিক করেছে নির্বাচন কমিশন। এ উপনির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী হতে মনোনয়নপত্র জমা দেয়া যাবে আগামী ১৮ জানুয়ারি পর্যন্ত। আর তা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২৯ জানুয়ারি।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এনডি

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত