artk
৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, বৃহস্পতিবার ২৩ নভেম্বর ২০১৭, ১২:১৯ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম

খালেদা-সুষমা বৈঠক
অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন দেখতে চায় ভারত

স্টাফ রিপোর্টার | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ২২১৭ ঘণ্টা, রোববার ২২ অক্টোবর ২০১৭ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ১৪৫১ ঘণ্টা, সোমবার ২৩ অক্টোবর ২০১৭


অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন দেখতে চায় ভারত - রাজনীতি

বাংলাদেশে একটি অংশগ্রহণমূলক সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন দেখতে চায় ভারত, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে এমন কথাই বলেছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। আর তা সাংবাদিকদের জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

সুষমা স্বরাজ আরও বলেছেন, বাংলাদেশে গণতান্ত্রিক চর্চা অব্যাহত থাকুক, এটাও তারা প্রত্যাশা করেন।

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদার জিয়ার নেতৃত্বে সাত সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল রোববার রাতে রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের সঙ্গে দেখা করতে যায়। পরে বৈঠকের বিষয়ে সাংবাদিকদের জানান মির্জা ফখরুল।

৪৫ মিনিটের আলোচনা শেষে মির্জা ফখরুল সাংবাদিকদের বলেন, “বিএনপির পক্ষ থেকে বাংলাদেশের রাজনীতি ও নির্বাচন সম্পর্কে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে বেশ কিছু বিষয় তুলে ধরা হয়। ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বিষয়গুলো শুনেছেন। এরপর সুষমা স্বরাজ বলেছেন, বাংলাদেশে একটি সুষ্ঠু নির্বাচন হোক, নির্বাচন কমিশন যেন অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন করে এবং তাতে যাতে সবাই অংশগ্রহণ করে; ভারত তেমনটাই চায়।”

বিএনপির মহাসচিব বলেন, “দলের পক্ষ থেকে রোহিঙ্গা সংকট তুলে ধরে বলা হয়—এই সংকটের সমাধান দরকার। রোহিঙ্গাদের তাদের নিজ দেশে ফিরিয়ে নেওয়া দরকার। এ ব্যাপার ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমরাও চাই রোহিঙ্গারা যাতে নিরাপদে দেশে ফিরে যেতে পারে। এ জন্য ভারতের পক্ষ থেকে চাপ অব্যাহত রাখা হয়েছে।”

প্রতিনিধিদলে অন্যদের মধ্যে ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, আবদুল মঈন খান ও আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা সাবিহউদ্দীন আহমেদ ও রিয়াজ রহমান।

দুদিনের সফরে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী রোববার দুপুরে ঢাকায় এসেছেন। এসেই তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করেন। পরে সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে গণভবনে বৈঠক করেন।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এনডি

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত