artk
৪ আশ্বিন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, মঙ্গলবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৫:৪৯ অপরাহ্ন

শিরোনাম

দূতাবাস ঘেরাওয়ে পুলিশের বাধা, মিয়ানমারের পণ্য বর্জনের ডাক গণজাগরণ মঞ্চের

স্টাফ রিপোর্টার | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ২০৫৯ ঘণ্টা, সোমবার ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৭


দূতাবাস ঘেরাওয়ে পুলিশের বাধা, মিয়ানমারের পণ্য বর্জনের ডাক গণজাগরণ মঞ্চের - রাজনীতি

মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের নির্বিচারে হত্যার প্রতিবাদে বাংলাদেশে মিয়ানমারের দূতাবাস ঘেরাওয়ের জন্য রাজধানীর বারিধারার উদ্দেশে রওনা হয় গণজাগরণ মঞ্চ। তবে গুলশান-২ পুলিশের বাধায় শেষ করতে হয়েছে দূতাবাস ঘেরাও কর্মসূচি।

ঘেরাও কর্মসূচি ব্যর্থ হলেও গণজাগরণ মঞ্চের পক্ষ থেকে মিয়ানমারের সকল ধরনের পণ্য বর্জনের ডাক দিয়েছে সংগঠনটি।

সোমবার বিকেলে পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচি হিসেবে রাজধানীর গুলশানের বারিধারায় অবস্থিত মিয়ানমার দূতাবাস ঘেরাওয়ের জন্য রওনা হয় গণজাগরণের মঞ্চের কর্মীরা। এতে নেতৃত্ব দেন মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান এইচ সরকার।

বিকেলে গণজাগরণের মঞ্চের কর্মিরা গুলশান-২ নম্বর এলাকায় পৌঁছলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। ফলে সেখানেই কর্মসূচি শেষ করতে হয় তাদের। তবে কর্মসূচি থেকে ডা. ইমরান এইচ সরকারের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল মিয়ানমার দূতাবাসে একটি স্মারকলিপি দেয়।

এর আগে ইমরান এইচ সরকার বক্তব্য রাখেন। তিনি সারাদেশে মিয়ানমারের চালসহ সকল পণ্য বর্জন করার আহ্বান জানিয়েছেন। সেইসঙ্গে মিয়ানমার থেকে চাল আমদানির চুক্তি বাতিলের দাবি জানিয়েছেন তিনি।

ইমরান বলেন, মিয়ানমারের রোহিঙ্গাদের রক্তে ভেজা চাল বাংলাদেশের মানুষ খেতে চায় না। জনগণ এ চাল বাংলাদেশে ঢুকতে দেবে না। চাল আমদানির সরকারি চুক্তি বাতিল করতে হবে।

ব্যবসায়ী ও সাধারণ মানুষকে উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনাদের টাকায় অস্ত্র, গোলাবারুদ কিনে মিয়ানমার সরকার রোহিঙ্গাদের রক্ত ঝরাচ্ছে। তাই সারাদেশে মিয়ানমারের সব পণ্য বর্জন করুন।

ইমরান এইচ সরকার বলেন, বাংলাদেশ সরকার মানবিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। তবে একইসঙ্গে বাংলাদেশের জাতীয় নিরাপত্তার বিষয়টিও মাথায় রাখতে হবে।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এসডি

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত