artk
৫ ভাদ্র ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, রোববার ২০ আগস্ট ২০১৭, ১১:১৪ অপরাহ্ন

শিরোনাম

মুক্তামণির তিন কেজি ওজনের টিউমার অপসারণ

স্টাফ রিপোর্টার | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ১২৪৪ ঘণ্টা, শনিবার ১২ আগস্ট ২০১৭ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ১৬৫৩ ঘণ্টা, শনিবার ১২ আগস্ট ২০১৭


মুক্তামণির তিন কেজি ওজনের টিউমার অপসারণ - জাতীয়
ফাইল ফটো

ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে জটিল রোগাক্রান্ত শিশু মুক্তামণির ডান হাতের অস্ত্রোপচার সফলভাবে সম্পন্ন হয়েছে। অপসারণ করা হয়েছে প্রায় তিন কেজি ওজনের টিউমার।

অস্ত্রোপচার শেষে শনিবার দুপুর পৌনে ১২টায় প্রেস ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান চিকিৎসকেরা। এর আগে সকাল সোয়া ৮টার দিকে মুক্তামণিকে অপারেশন থিয়েটারে নেয়া হয়। অস্ত্রোপচারে অংশ নেন ২০ জনের বেশি চিকিৎসক।

এদিকে, অস্ত্রোপচারের পর মুক্তামণির জ্ঞান ফিরে এসেছে। তাকে হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) রাখা হয়েছে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে বার্ন ইউনিটের বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি বিভাগের প্রধান অধ্যাপক আবুল কালাম বলেন, “ডান হাত অক্ষত রাখা হয়েছে। অস্ত্রোপচার প্রাথমিকভাবে সফল। তবে তাকে ঝুঁকিমুক্ত বলা যাবে না। কারণ, তার ফুসফুসের সমস্যাসহ অন্যান্য জটিলতা রয়েছে। টিউমার শরীরের অনেক জায়গায় ছড়িয়েছিল। হাতের অংশটুকু বেশি খারাপ অবস্থায় ছিল। ওটা আজ অপসারণ করা হয়েছে। অপসারিত টিউমারটির ওজন প্রায় তিন কেজি।”

তিনি আরও জানান, মুক্তামণির শরীর থেকে সব টিউমার সরাতে আরও পাঁচ থেকে ছয়টি অস্ত্রোপচার লাগবে। ওর শারীরিক অবস্থা বুঝে পরবর্তী অস্ত্রোপচারের সময় ঠিক করা হবে। মুক্তামণিকে দীর্ঘদিন পর্যবেক্ষণে রাখা হবে এবং যেদিন সে বাড়ি ফিরতে পারবে, সেদিনই তাকে ঝুঁকিমুক্ত বলা যাবে বলেও জানান অধ্যাপক আবুল কালাম।

৫ আগস্ট বায়োপসি সম্পন্ন করার পর ৭ তারিখে চিকিৎসকরা জানান, মূলত রক্তনালীতে টিউমার হওয়ার কারণে হাত ফুলে যায় মুক্তামনির।

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার কামারবায়সা গ্রামের মুদি দোকানি ইব্রাহীম হোসেনের ১২ বছরের মেয়ে মুক্তামণির ডান হাতে দেড় বছর বয়সে একটি ছোট গোটা দেখা দেয়। পরে তা বাড়তে থাকে। বছর চারেক আগে এমন পর্যায় যায় যে তার স্বাভাবিক চলাফেরা ব্যাহত হচ্ছে। আক্রান্ত হাতটি তার দেহের চেয়ে ভারি হয়ে উঠেছে, যন্ত্রণায় সব সময় অস্থির থাকে সে।

শিশুটির খবর গণমাধ্যমে আসার পর তার চিকিৎসার দায়িত্ব নেয় সরকার।

নিউজবাংলাদেশ.কম/একিউএফ

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত