artk
১৩ শ্রাবণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, শুক্রবার ২৮ জুলাই ২০১৭, ১২:৪৪ অপরাহ্ন

শিরোনাম

জামিনে মুক্ত হয়ে ছাত্রীর বাবার পা ভেঙে দিলো উত্ত্যক্তকারী

জেলা সংবাদদাতা | নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ২২০৬ ঘণ্টা, বৃহস্পতিবার ১৮ মে ২০১৭


জামিনে মুক্ত হয়ে ছাত্রীর বাবার পা ভেঙে দিলো উত্ত্যক্তকারী - জাতীয়

বাগেরহাট জেলার চিতলমারীতে কলেজ ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করার দায়ে দণ্ডপ্রাপ্ত আসামির হামলায় ছাত্রীর বাবা দবির উদ্দিন শেখ (৫৫) গুরুতর আহত হয়েছেন। হামলায় দবির উদ্দিনের ডান পা ভেঙে গেছে।

বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার বড়বাড়িয়া ইউনিয়নের মইজোড়া গ্রামের ইসহাক কারীর বাড়ির সামনের রাস্তায় হামলার ঘটনা ঘটে। পরে দবির উদ্দিনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে চিতলমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক মামুন হাসান বলেন, “দবির উদ্দিনের দুই হাত ও পায়ে একাধিক জখম হয়েছে। তার ডান পা ভেঙে গেছে। তাকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।”

তবে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান এই চিকিৎসক।

চিতলমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম জানান, বড়বাড়িয়া ইউনিয়নের মইজোড়া গ্রামের দবির উদ্দিন শেখের কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে একই গ্রামের মুজিবর শেখ নামে এক যুবক কলেজে যাওয়া আসার পথে প্রায়ই উত্ত্যক্ত করত। দবির উদ্দিন এ বিষয়ে প্রশাসনের কাছে মুজিবরের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দেন। প্রশাসন ওই অভিযোগ পেয়ে গত ১৭ এপ্রিল ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে মুজিবরকে তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেন।

তিনি আরও জানান, তিনদিন আগে মুজিবর জামিনে বেরিয়ে আসেন। এরপর বৃহষ্পতিবার সকালে দবির শেখ বাড়ি থেকে বাজারে যাচ্ছিলেন। এসময় মুজিবর শেখ ৪ থেকে ৫ জনকে সঙ্গে নিয়ে লাঠিসোটা ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে দবির উদ্দিনকে এলোপাথাড়ি পিটিয়ে ও কুপিয়ে গুরুতর জখম করে পালিয়ে যান। তাকে ধরতে পুলিশ অভিযান শুরু করেছে বলেও জানান তিনি।

নিউজবাংলাদেশ.কম/আইকে/এসজে/এসডি

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত