artk
৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, মঙ্গলবার ২১ নভেম্বর ২০১৭, ৩:০৭ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম

রোদে রোদচশমা চাই?

| নিউজবাংলাদেশ.কম
প্রকাশ: ১৩২৪ ঘণ্টা, বৃহস্পতিবার ২০ এপ্রিল ২০১৭ || সর্বশেষ সম্পাদনা: ১৩২৭ ঘণ্টা, বৃহস্পতিবার ২০ এপ্রিল ২০১৭


রোদে রোদচশমা চাই? - লাইফস্টাইল

চারদিকে প্রচণ্ড গরম। তার উপর ধুলোবালির অত্যাচার। এই গরমে যতই এগুলো থেকে দূরে থাকতে চান না কেন, ঘুরে-ফিরে প্রয়োজনে সেগুলোর মাঝেই থাকতে হয়। এসব থেকে চোখ রক্ষা করতে অনেকেই ব্যবহার করেন সানগ্লাস। চোখের জন্য দরকারি সানগ্লাসের খবর জেনে নিন। 

এই প্রচণ্ড রোদে সানগ্লাস খুব উপকারী। গরমেই মূলত চোখের নানা ধরনের সমস্যা হয়ে থাকে। আর এর সাথে কারও যদি মাইগ্রেন বা সাইনাসের সমস্যা থাকে তাহলে তো কথাই নেই! এসব সমস্যা থেকে খুব সহজে রেহাই পাওয়ার একমাত্র উপায় হলো সানগ্লাস ব্যবহার করা।

ব্র্যান্ডেড সানগ্লাস

ব্র্যান্ডেড জিনিসের প্রতি প্রায় সবারই একটা বাড়তি আকর্ষণ থাকে। ফুটপাত থেকে শুরু করে বহুতল বিপণী সবখানেই সানগ্লাসের দোকান খুঁজে পাওয়া যায়। ব্র্যান্ডেড সানগ্লাস কিনতে চাইলে আপনাকে অবশ্যই ভালো দোকানে যেতে হবে। ব্র্যান্ডেড সানগ্লাসে দুই ধরনের সুবিধা পাওয়া যায়—এগুলোর গুণগত মান ভালো থাকে এবং দারুণ ফ্যাশনেবল হয়। বিভিন্ন নামের ব্র্যান্ডেড সানগ্লাস রয়েছে, যেমন—রে ব্যান, গুচি, সিকে, পুলিশ ইত্যাদি। এসব ব্র্যান্ডেড সানগ্লাস ছেলে-মেয়েদের জন্য আলাদা ডিজাইন এবং ভিন্ন দামে পাওয়া যায়।

এ ছাড়া দেশের সবখানেই নন-ব্র্যান্ডেড সানগ্লাসও কিনতে পাওয়া যায়। এগুলোতে দেখা যায় বৈচিত্র্য এবং দামটাও থাকে হাতের নাগালে। ছেলেমেয়ে উভয়ের জন্য আলাদা করে তৈরি করা হয়। তবে কিছু কিছু সানগ্লাস ছেলেমেয়ে সবাই ব্যবহার করতে পারবে। ফ্যাশনের প্রয়োজনে যদি কিছুদিন অন্তর অন্তর সানগ্লাস বদলাতে চান, তবে নন-ব্র্যান্ডেড পণ্যই ব্যবহার করা ভালো।

হালের ফ্যাশনে গা না ভাসিয়ে নিজের পছন্দের সাথে মিলিয়ে সানগ্লাস কেনাই বুদ্ধিমানের কাজ। যেমন মাপেরই সানগ্লাস বাজারে আসুক না কেন, সেটা কেনার আগে অবশ্যই যাচাই-বাছাই করে নেবেন—এটা আপনাকে মানাচ্ছে কি না! গোলগাল চেহারা হলে অবশ্যই আপনার সানগ্লাসটা যেন একটু লম্বাটে ধরনের হয় সেদিকে খেয়াল রাখুন। আবার একটু লম্বাটে ধরনের মুখ হলে ডাম্বেল আকৃতি বা মুগুরাকৃতির সানগ্লাস বেশ ভালো মানাবে। খেয়াল রাখবেন, চোখের কোল ঢেকে যায় এমন সানগ্লাস ব্যবহার করা ভালো।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এমএস

নিউজবাংলাদেশ.কমে প্রকাশিত যে কোনও প্রতিবেদন, ছবি, লেখা, রেখাচিত্র, ভিডিও-অডিও ক্লিপ অনুমতি ছাড়া অন্য কোনও মাধ্যমে প্রকাশ, প্রচার করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।
আপনার মন্তব্য